Home / নারী ও শিশু / ফাস্ট ফুডে বাড়ে গর্ভবতীর স্বাস্থ্যঝুঁকি

ফাস্ট ফুডে বাড়ে গর্ভবতীর স্বাস্থ্যঝুঁকি

ঢাকা: বর্তমান প্রজন্মের মায়েরা অনেক বেশি সচেতন। কিন্তু অনেকেই তার আগের খাদ্যাভ্যাস ছাড়তে পারেন না। পছন্দের খাদ্য তালিকায় থাকে পিজা, বার্গার, স্যান্ডউইচ, চিকেন ফ্রাই, মিষ্টি, আইসক্রিম ও কোমল পানীয়। এছাড়াও প্যাটিস, পেস্ট্রি  কেক বা পাস্তাও থাকতে পারে। এগুলোর অধিকাংশই অস্বাস্থ্যকর তেল, ভেজালযুক্ত বা বাসি উপকরণ দিয়ে তৈরি হয়। রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ বেড়ে গিয়ে হৃদরোগ বা স্ট্রোকের আশংকা দেখা দেয়। কাজেই ফাস্ট ফুড বা জাংক ফুডে স্বাস্থ্য ঝুঁকি অনেক বেশি।

সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক প্রমাণ করেছেন- গর্ভবতী মা ফাস্ট ফুড খেলে বাচ্চার উল্লেখযোগ্য ক্ষতির আশংকা রয়েছে। তাদের পরীক্ষায় প্রমাণিত হয়েছে, গর্ভাবস্থায় বেশি মিষ্টি ও বেশি চর্বি জাতীয় খাবার খেলে, সন্তানও মিষ্টি ও চর্বি জাতীয় খাবারের প্রতি বেশি আসক্ত হবে।

এর কারণ হিসেবে গবেষকেরা দেখিয়েছেন যে, মায়ের খাদ্যাভ্যাস তার গর্ভের শিশুর মস্তিষ্কে এক ধরণের প্রভাব ফেলে। যার কারণে মায়ের পছন্দ-অপছন্দ শিশুর ভেতরে প্রতিফলিত হয়।

কাজেই মা যতই তার সন্তানকে নিষেধ করুন না কেন, বাচ্চা ফাস্ট ফুডে আসক্ত হবে। আর এ কারণে অল্প বয়সে সন্তানদের স্থূলকায় হওয়ার প্রবণতা বেশি থাকে। এছাড়াও বাচ্চা বয়সেই অন্যান্য শারীরিক সমস্যাও দেখা দিতে পারে।

Check Also

শেরপুরে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

শেরপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার শেরপুর উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির সাবেক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Website Design, Developed & Hosted by